হিন্দু মেয়েরা কেন পিতার সম্পত্তিতে ভাগ পাবেনা : হাইকোর্ট

বাংলাদেশ হাইকোর্ট

 হিন্দু ধর্মাবলম্বীদের পিতার সম্পত্তির ভাগ কন্যাদেরকে না দেওয়া কেন অসাংবিধানিক ও বেআইনি ঘোষণা করা হবে না, তা জানতে চেয়ে রুল জারি করেছেন হাইকোর্ট।

মন্ত্রিপরিষদ সচিব, আইন, বিচার ও সংসদ বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের সচিব, ধর্ম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের সচিব, হিন্দু ধর্মীয় কল্যাণ ট্রাস্টসহ সংশ্লিষ্ট আট বিবাদীকে এই রুলের জবাব দিতে বলা হয়েছে। আগামী এক সপ্তাহের মধ্যে এই রুলের জবাব দিতে হবে বলে জানিয়েছেন হাইকোর্ট। একই সঙ্গে আগামী ২০ ফেব্রুয়ারি এ বিষয়ে পরবর্তী শুনানির দিন নির্ধারণ করেছেন আদালত। ওই দিন বিস্তারিত শুনানি ও অ্যামিকাস কিউরি (আদালতের বন্ধু) নিয়োগ করা হতে পারে।

এ সংক্রান্ত রিট আবেদনের প্রাথমিক শুনানি নিয়ে সোমবার (১৪ ফেব্রুয়ারি) হাইকোর্টের বিচারপতি মামনুন রহমান ও খোন্দকার দিলীরুজ্জামানের সমন্বয়ে গঠিত ভার্চুয়াল বেঞ্চ এ রুল জারি করেন।

আদালতে রিটের পক্ষে শুনানি করেন আইনজীবী ব্যারিস্টার খায়রুল আলম চৌধুরী। অন্যদিকে রাষ্ট্রপক্ষে শুনানিতে ছিলেন ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল বিপুল বাগমার।

ব্যারিস্টার খায়রুল আলম চৌধুরী এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। তিনি জানান যে, রিটের আট বিবাদীকে আগামী এক সপ্তাহের মধ্যে এই রুলের জবাব দিতে বলেছেন আদালত।

এর আগে গত ১৩ ফেব্রুয়ারি হিন্দু ধর্মাবলম্বী নারীদের পিতার সম্পত্তির ভাগ না পাওয়া আইনি বিধানের বৈধতা চ্যালেঞ্জ করে হাইকোর্টে রিট দায়ের করা হয়। রাজধানীর বনানীর বাসিন্দা মৃত অশোক দাস গুপ্তের কন্যা ব্যবসায়ী অনন্যা দাস গুপ্ত বাদী হয়ে রিটটি দায়ের করেন। ওই রিটের শুনানি নিয়ে হিন্দু ধর্মাবলম্বী নারীরা পিতার সম্পত্তির অংশ পাবে না - এমন বিধান কেন অবৈধ ঘোষণা হবে না জানতে চেয়ে রুল জারি করেছেন হাইকোর্ট।

নবীনতর পূর্বতন